,

বাঁশখালীর ঘটনায় অবশেষে মুখ খুললেন সাংসদ

banskhali-MPবাঁশখালী

বাঁশখালীতে এস আলম গ্রুপের কয়লা ভিত্তিক বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণকে ঘিরে দুই পক্ষের সংঘর্ষে চারজন নিহতের ঘটনার তিনদিন পর সংবাদ সম্মেলন করেছেন স্থানীয় সংসদ সদস্য মোস্তাফিজুর রহমান চৌধুরী।

বৃহস্পতিবার সকালে নগরীর বায়েজিদ বোস্তামী থানার রহমান নগর আবাসিক এলাকার নিজ বাসভবনে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন তিনি।

এ ঘটনায় বিএনপি নেতা গণ্ডামারা ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান লেয়াকত আলীকে দায়ী করে নিহতদের জন্য দুঃখ প্রকাশ করেন মোস্তাফিজুর রহমান চৌধুরী।

ঘটনাস্থলে দুই পক্ষের সাংঘর্ষিক অবস্থান এড়াতে ১৪৪ ধারা জারি থাকলেও তা জানতেন না বলে দাবি করেন বাঁশখালীর এ সাংসদ।  তিনি বলেন, এলাকার শান্তির জন্য প্রশাসন ১৪৪ ধারা জারি করতেই পারে। এটা আমাকে জানতে হবে কেন।

এস আলম গ্রুপের বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণের প্রকল্প এলাকায় কোন বিরোধীতা নেই বলে দাবি করেন তিনি। এটা নিয়ে রাজনীতি হচ্ছে অভিযোগ করেন তিনি বলেন, চাঁদাবাজি করার জন্য একটি পক্ষ এ ঘটনা ঘটিয়েছে।

স্থানীয় বাসিন্দারা এ প্রকল্পের বিরোধীতা করছে, এ অবস্থায় স্থানীয় সাংসদ হিসেবে দায়িত্ব সম্পর্ক জানতে চাইলে মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, এটা সরকার ও প্রকল্প বাস্তবায়নকারী প্রতিষ্ঠানের বিষয়।  তারাই এ বিষয়টা দেখবে।



সরকার এ বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিবে উল্লেখ করে তিনি প্রশ্ন রাখেন, ‘সন্ত্রাসীদের জন্য কি উন্নয়ন প্রকল্প বন্ধ থাকবে?’

সংবাদ সম্মেলনে মোস্তাফিজুর রহমানের পক্ষে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন বাঁশখালী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক আব্দুল গফুর। এসময় উপস্থিত ছিলেন বাঁশখালী পৌর মেয়র সেলিমুল হক চৌধুরী, উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি রেহানা আক্তার, উপজেলা আ’লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মহিউদ্দিন চৌধুরী।

পোস্টটি ফেসবুক এ শেয়ার করে অন্যদের জানার সুযোগ দিন। আপনার প্রয়োজনীয় সব গুরুত্বপূর্ণ পোস্ট পেতে প্রয়োজন২৪.কম পেইজ এ লাইক দিয়ে অ্যাক্টিভ থাকুন।

Share Button