,

অপরুপ সৌন্দর্যের আধাঁর আবুধাবীর শেখ জায়েদ গ্রান্ড মসজিদ

শেখ জায়েদ গ্রান্ড মসজিদ-sheikh-zayed-grand-mosque-abu-6890
প্রয়োজন ডেস্ক: সুন্দর ও আকর্ষনীয় মসজিদের দেশ সংযুক্ত আরব আমিরাত। এখানাকার প্রতিটি মসজিদ যেন নয়নাভিরাম অপরূপ সৌন্দর্যে ভরা। আধুনিক নির্মানশৈলী আর প্রযুক্তি নির্ভর প্রতিটি মসজিদ যেন এক একটি সৌন্দর্যের উৎস।
তাই এখানকার আবুধাবী, আল আইন, দুবাই, শারজাহ, আজমান, ফুজিরা, রাস আল খাইমাসহ প্রতিটি প্রদেশ তথা অঞ্চলের মনোমুগ্ধকর সুন্দর মসজিদগুলো দেখার জন্য দেশ বিদেশের পর্যটকরাও ভিড় জমান।
অপরূপ সৌন্দর্যে ভরা আবুধাবীর শেখ জায়েদ গ্রান্ড মসজিদ আরব আমিরাতের সর্ববৃহৎ এবং পৃথিবীর অন্যতম বৃহত্তম এবং সুন্দরতম মসজিদ। ১০৭ মিটার উঁচু চার মিনার বিশিষ্ট এই মসজিদ আমিরাতের জনক শেখ জায়েদ বিন আল নাহিয়ানের নাম অনুসারে নাম করন করা হয়।
পৃথিবীর সর্ববৃহৎ কার্পেট (৫৬২৭ বর্গমিটার) এবং সর্ববৃহৎ ঝারবাতি (১০মিটার ব্যাস এবং ১৫ মিটার উচু) বিশিষ্ট এই মসজিদের আঙ্গিনা ১৭০০০ বর্গমিটারের মার্বেল মোজাইকও পৃথিবীর সর্ববৃহৎ চওড়া মার্বেল মোজাইক বলে স্বীকৃত।
sheikh-zayed-grand-mosque-sheikh-zayed-grand-mosque-1
ছোট বড় ৭ আকারের ৮২ টি গম্বুজ বিশিষ্ট শ্বেত মার্বেলে নির্মিত এই মসজিদ দেখতে প্রতিদিন পৃথিবীর নানা দেশ থেকে হাজার হাজার পর্যটক আমিরাতের রাজধানী আবুধাবীতে আসে। রমজানে তারাবির নামাজসহ পাচঁ ওয়াক্ত নামাজ আদায়ের জন্য যেমন ধর্মপ্রাণ নারী পুরুষ মুসল্লীরা এই মসজিদে আসেন, তেমনি এই মসজিদের অপরূপ সৌন্দর্য উপভোগ করার জন্য আমাদের দেশিয় শত শত প্রবাসীসহ আমেরিকা, ইউরোপ, আফ্রিকা, অস্ট্রেলিয়া, রাশিয়া ও এশিয়ার বিভিন্ন দেশের হাজার হাজার পর্যটকরাও প্রতিদিন এখানে আসেন। এই মসজিদ দেখতে আমিরাতের বিভিন্ন প্রদেশ থেকেও আসেন স্থানীয় আরবী ও প্রবাসীরা।



6887392973_0520eb6fef_b
জুম’আ আর ঈদের নামাজে মানুষের উপচে পড়া ভিড় আর রমজানের গণ ইফতার পার্টির জমায়েত না দেখলে বুঝাই যায় না কত মানুষ এখানে নামাজ পড়তে, ইফতার করতে ও দেখতে আসে? মহিলাদের জন্য আছে নামাজের আলাদা জায়গা। মসজিদ আঙ্গিনায় অন্যান্য ধর্মাবলীর মহিলারা প্রবেশে বাধা থাকলেও বোরকা পড়ে মসজিদের আঙিনাসহ ভিতরে মসজিদের অপরুপ কারুকাজ ও সৌন্দর্য দেখতে যাওয়াতে আপত্তি নেই। এই মসজিদের পাশেই আছে শেখ জায়েদ বিন আল নাহিয়ানের মাজার। যা দেখতেও পর্যটকরা ভিড় করে।
পবিত্র মাহে রমজানের গণ ইফতার পার্টিতে যোগ দিতে ও তারাবির নামাজ আদায় করতে আমিরাতের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে ধর্মপ্রান মুসল্লীরা ছুটে আসেন। প্রতিবছর রমজান মাসে পহেলা রমজান থেকে ত্রিশে রমজান পর্যন্ত মাসব্যাপী এখানে ইফতারের আয়োজন করা হয়। ইফতারে প্রতিদিন হাজার হাজার প্রবাসী বাংলাদেশিসহ নানা দেশের বিশ হাজার থেকে ত্রিশ হাজারের বেশি মুসলমান শরীক হয়। ইফতারের এ বিশাল আয়োজন ইউএই প্রেসিডেন্টের ফান্ড থেকে করা হয়। আবুধাবীর বিভিন্ন প্রান্ত থেকে ইফতার পার্টিতে সহজে আসা যাওয়ার জন্য ফ্রি বাস সার্ভিসের ব্যবস্থা করা হয়েছে।
পৃথিবীর নানা প্রান্ত থেকে আসা পর্যটকদের মন্তব্য, এই মসজিদ পৃথিবীর অন্যতম সেরা এক দৃষ্টিনন্দন স্থাপত্য। তাই তারা বার বার এইখানে ফিরে আসার আকাঙ্খা ব্যক্ত করে।
পোস্টটি ফেসবুক এ শেয়ার করে অন্যদের জানার সুযোগ দিন। আপনার প্রয়োজনীয় সব গুরুত্বপূর্ণ পোস্ট পেতেপ্রয়োজন২৪.কমপেইজ এ লাইক দিয়ে অ্যাক্টিভ থাকুন।
Share Button